বুধবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৯:৪৬ অপরাহ্ন

শীর্ষ সংবাদ :
সিলেটী দুই ‘কৃতি সন্তান’ ডাক পেলেন শ্রীলঙ্কা সফরে

সিলেটী দুই ‘কৃতি সন্তান’ ডাক পেলেন শ্রীলঙ্কা সফরে

ডেইলি সিলেট মিডিয়া ডেস্কঃ চলতি মাসেই শ্রীলঙ্কা সফরে যাওয়ার কথা রয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের। সফরে গেলে তাদের বিপক্ষে বাংলাদেশ খেলবে তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজ। এই সিরিজের জন্য এখনও চূড়ান্ত দল ঘোষণা করা না হলেও প্রাথমিকভাবে ২৭ খেলোয়ড়াকে বাছাই করা হয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে জাতীয় দলের কৃতি ক্রিকেটার ও সিলেট বিভাগের দুই কৃতি সন্তান।

এ বিষয়ে জাতীয় দলের প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদিন নান্নু জানিয়েছেন, বিসিবির কাছে খেলোয়াড়দের তালিকা জমা দেয়া হয়েছে। বিসিবি সভাপতি অনুমোদন দেয়ার পরই সেটা প্রকাশ করা হবে।

তবে কোয়ারেন্টাইন বিষয়ক জটিলতার কারণে যদিও সফর নিয়ে কিছুটা শঙ্কা দেখা দিয়েছে। এমনকি শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট বোর্ড (এসএলসি) এখনও আনুষ্ঠানিকভাবে কিছু জানায়নি।

কিন্তু তাই বলে তো প্রস্তুতি নেয়া বন্ধ রাখা যাবে না। চলতি মাসের শেষ সপ্তাহেই শ্রীলঙ্কা সফরে যাবে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। আগামী মাসের (অক্টোবর) শেষ সপ্তাহে শুরু হওয়ার কথা বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা টেস্ট সিরিজ।

যে ২৭ খেলোয়াড়ের জন্য সরকারের কাছ থেকে অনুমতি নেয়া হয়েছে, তারা হলেন-

১. মুমিনুল হক, ২, লিটন কুমার দাস, ৩. মোহাম্মদ মিঠুন, ৪. মুশফিকুর রহীম, ৫. মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, ৬. তামিম ইকবাল, ৭. সৌম্য সরকার, ৮. মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন, ৯. আবু জায়েদ চৌধুরী রাহী, ১০. মোস্তাফিজুর রহমান, ১১. রুবেল হোসেন, ১২. মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত, ১৩. মেহেদী হাসান মিরাজ, ১৪. নাঈম হাসান, ১৫. ইমরুল কায়েস, ১৬. তাইজুল ইসলাম, ১৭. এবাদত হোসেন চৌধুরী, ১৮. সাদমান ইসলাম, ১৯. মোহাম্মদ আল আমিন হোসেন, ২০.সানজামুল ইসলাম, ২১. নাজমুল হোসেন শান্ত, ২২.হাসান মাহমুদ, ২৩. মেহেদী হাসান, ২৪. শফিউল ইসলাম, ২৫. ইয়াসির আলি চৌধুরী, ২৬. তাসকিন আহমেদ, ২৭. কাজী নুরুল হাসান সোহান।

এর মধ্যে আবু জায়েদ চৌধুরী রাহী (৯ নং) সিলেট জেলার ও এবাদত হোসেন চৌধুরী (১৭ নং) মৌলভীবাজার জেলার।

সিলেটের বালাগঞ্জে জন্ম নেয়া এবং নগরীর রায়নগরে বেড়ে উঠা আবু জায়েদ চৌধুরী রাহী তিন ফরম্যাট মিলিয়ে জাতীয় দলের হয়ে ১৫টি আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেছেন ইতোমধ্যে। বর্তমানে টেস্ট দলে বাংলাদেশের নির্ভরযোগ্য পেসার এখন রাহীই। এখন পর্যন্ত ৯ টেস্টে বোলিং করে ২৪ উইকেট নিয়েছেন এই ফাস্ট বোলার।

এদিকে, এই করোনাকালেই গত জুলাই মাসে জীবনের দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করলেন দলের বর্তমান সময়ের এই নির্ভরযোগ্য পেসার আবু জায়েদ রাহী । করোনাভাইরাস সংকটের কারণে ঘরোয়া পরিসরে বিয়ের পিঁড়িতে বসেন তিনি। রাহীর স্ত্রী হলেন রায়নগর দর্জিপাড়া এলাকার বাসিন্দা তৌহিদা আক্তার জুহা। পেশায় তিনি একজন চিকিৎসক। করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে সবাইকে নিয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে নব দম্পতিকে বরণ করা হবে বলে জানা গেছে।

অপরদিকে, শ্রীলঙ্কা সফরে ডাক পাওয়া সিলেটের আরেক কৃতী ক্রিকেটার হচ্ছেন এবাদত হোসেন চৌধুরী। সিলেটের মৌলভীবাজার জেলার বড়লেখার কাঁঠালতলি গ্রামে বাড়ি হলেও চাকরির সুবাদে ফরিদপুর থেকে ২০১৬ সালে রবি ফাস্ট বোলার অন্বেষণ কর্মসূচিতে নিবন্ধন করেন এবাদত। ফরিদপুর স্টেডিয়ামে ট্রায়ালে ঘন্টায় ১৩৯ কিলোমিটার গতিতে বল করে চক্ষু চড়কগাছ করে দেন সংশ্লিষ্টদের। বাংলাদেশের ক্রিকেট ইতিহাসে যে মাত্র দু’জন বোলার ঘন্টায় ১৪০ কিলোমিটার গতির ঝড় তুলতে পারেন! তাঁদের সাথে সাথে এবাদতের নামের সাথে তাই লেপ্টে যায় ‘স্পিডস্টার’ বা গতিদানব উপাধি।

পরবর্তীতে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজে অভিষেক হয় এবাদত হোসেনের। এই পেস বোলার এখন ভবিষ্যতের জন্য স্বপ্ন আঁকছেন। পরিশ্রম, আত্মবিশ্বাসে স্বপ্নের নাগাল পাওয়া সম্ভব বলে মনে করেন তিনি।


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2017 Bditfactory.com
পোর্টাল বাস্তবায়নে : বিডি আইটি ফ্যাক্টরী লিঃ