রবিবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৩:৫৭ পূর্বাহ্ন

খাতুনগঞ্জে একদিনেই পেঁয়াজের দাম বাড়ল কেজিতে ২০ টাকা

খাতুনগঞ্জে একদিনেই পেঁয়াজের দাম বাড়ল কেজিতে ২০ টাকা

ডেইলি সিলেট মিডিয়া ডেস্ক: একদিনের ব্যবধানে দেশের সবচেয়ে বড় পাইকারি বাজার খাতুনগঞ্জে পেঁয়াজের দাম কেজিপ্রতি একলাফে ২০ টাকা বেড়ে গেছে। সোমবার দুপুরে ৩৫ টাকা কেজি দরে বিক্রি হওয়া ভারতীয় পেঁয়াজ আজ (মঙ্গলবার) সকাল থেকে ৫৫ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। এর আগে গতকাল সন্ধ্যায় পেঁয়াজ বিক্রিই বন্ধ করে দিয়েছিলেন খাতুনগঞ্জের আড়তদাররা।

খাতুনগঞ্জে পেঁয়াজের দাম বেড়ে যাওয়ার খবর ছড়িয়ে পড়ার সাথে সাথে নগরের খুচরা বাজারে এর প্রভাব পড়তে শুরু করেছে। খুচরা বাজারে গতকাল সন্ধ্যা থেকে পেঁয়াজের কেজি ৫৫ থেকে ৬০ টাকায় উঠে এসেছে। কোথাও আবার ৭০ টাকাতেও মিলছে না পেঁয়াজ।

গত বছরের মতো এবারও সেপ্টেম্বর মাসে পেঁয়াজ রফতানি বন্ধ করে দিয়েছে ভারত। সোমবার দেশটির বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের বৈদেশিক বাণিজ্য অধিদফতর পেঁয়াজ রফতানি নিষিদ্ধের ঘোষণা দিয়ে চিঠি ইস্যু করে।

তবে ভারতের এই ঘোষণায় কিছুটা সমস্যা হলেও গতবারের মতো খারাপ পরিস্থিতি হবে না বলে মনে করছে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়। গত বছরের তিক্ত অভিজ্ঞতার কারণে বেশ আগে থেকেই প্রস্তুতি নিয়ে রেখেছে সরকার। এরই ধারাবাহিকতায় তুরস্ক থেকে চলতি মাস শেষেই আসছে পেঁয়াজ। এমনকি পেঁয়াজের বাজার নিয়ন্ত্রণে রাখতে ইতোমধ্যে প্রতি কেজি পেঁয়াজ ৩০ টাকায় বিক্রি শুরু করেছে টিসিবি।

গত বছর ভারতের পেঁয়াজ রফতানি বন্ধ ঘোষণার পর দেশের বাজারে পেঁয়াজের দামে দুই দফা ডাবল সেঞ্চুরি পেরিয়ে যায়। পরে পরিস্থিতি সামাল দিতে পরে ব্যবসায়ীরা মিয়ানমার, পাকিস্তান, চীন, মিশর, তুরস্কসহ বিভিন্ন দেশ থেকে নানা রঙের ও স্বাদের পেঁয়াজ আমদানি করে।

খাতুনগঞ্জের মেসার্স এস এন ট্রেডার্সের স্বত্বাধিকারী আলী হোসেন খোকন জানান, দক্ষিণ ভারতে বন্যায় পেঁয়াজের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। যে কারণে সেখানেও পেঁয়াজের দাম বেড়েছে। এখন ওখানে নাকি পেঁয়াজের সংকট দেখা দিয়েছে। এছাড়া ভারতে এখন নাসিক জাতের পেঁয়াজ উৎপাদন হচ্ছে না। এ অবস্থায় ভারত আবার বাংলাদেশে পেঁয়াজের রফতানি বন্ধ করে দিয়েছে।

এদিকে মিয়ানমার থেকেও বাংলাদেশে পেঁয়াজ আমদানি হচ্ছে না। এ অবস্থায় ভারত থেকে আমদানি বন্ধ হয়ে যাওয়ায় পেঁয়াজের দাম আবার অস্বাভাবিকভাবে বেড়ে যাচ্ছে।


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2017 Bditfactory.com
পোর্টাল বাস্তবায়নে : বিডি আইটি ফ্যাক্টরী লিঃ