বৃহস্পতিবার, ২১ জানুয়ারী ২০২১, ০২:৩২ পূর্বাহ্ন

শীর্ষ সংবাদ : :
বিদায় পিতিবি: ট্রাম্প ২১ জানুয়ারি : আজকের দিনে ২০২৭ সালের মধ্যে ৫০ লাখ লোকের কর্মসংস্থান হবে আফ্রিকায় : পররাষ্ট্রমন্ত্রী ‘মেগা প্রকল্পের কাজ শেষ হলে আমূল পরিবর্তন ঘটবে’ : পরিকল্পনামন্ত্রী গণতন্ত্র রক্ষা পেয়েছে: প্রথম ভাষণে প্রেসিডেন্ট বাইডেন নির্বাচনে জেতায় স্বামীকে কাঁধে নিয়ে ঘুরলেন স্ত্রী, ছবি ভাইরাল বাইডেনের নীতির সুফল পেতে পারে বাংলাদেশ প্রেম, বিয়ে, পরদিন ‘বাসর ঘর’-এ মিলল তন্বীর লাশ! এক সতীনকে জেতাতে তিন সতীনের প্রচারণা সিলেট ধোপাগুলে ৬ বছরের শিশুকে ‘ধর্ষণ’, আটক ১ সিলেটে পানির দামে পেঁয়াজ! সিলেট জেলা ও মহানগর তাঁতী লীগের কমিটি গঠন সুনামগঞ্জের মেয়রের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা সিকৃবিতে মাৎসবিজ্ঞান অনুষদের সেমিনার অনুষ্ঠিত সিলেটে র‌্যাবের জালে ৩ জাতীয় সংসদে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেয়ার দাবি সিলেট সদরে প্রধানমন্ত্রীর ১৪৪টি ‘স্বপ্ননীড়’ দক্ষিণ সুরমায় ভোররাতে পুলিশের ঝটিকা অভিযান, আটক ৬ সিলেট র‌্যাবের সন্ত্রাসবিরোধী ম্যারাথন শুক্রবার : প্রধান অতিথি পররাষ্ট্রমন্ত্রী রাত ১০টায় শপথ নেবেন বাইডেন, নজিরবিহীন নিরাপত্তা
শিল্পকলায় শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে বনানীতে হবে কাদেরের দাফন

শিল্পকলায় শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে বনানীতে হবে কাদেরের দাফন

রাজধানীর সেগুনবাগিচার শিল্পকলা একাডেমি প্রাঙ্গণে মরদেহে সর্বস্তরের মানুষ শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে বিকেলে বনানীতে দাফন করা হবে বর্ষীয়ান অভিনেতা আবদুল কাদেরকে।

শনিবার সকালে তার পুত্রবধূ জাহিদা ইসলাম জেমি সংবাদমাধ্যমকে এ কথা জানিয়েছেন।

তিনি বলেন, ‘হাসপাতাল থেকে মরদেহ নিয়ে যাওয়া হবে মিরপুর ডিওএইচএস-এর বাসায়। ডিওএইচএস জামে মসজিদে প্রথম জানাজা হওয়ার কথা রয়েছে।’

আবদুল কাদেরের পুত্রবধূ আরও বলেন, ‘পরে বিকেল সাড়ে ৩টা থেকে সেগুনবাগিচার শিল্পকলা একাডেমি প্রাঙ্গণে মরদেহে সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য রাখা হবে। এরপর বনানী কবরস্থানে তাকে দাফন করা হবে।’

ক্যানসারে আক্রান্ত গুণী অভিনেতা আবদুল কাদের সকাল ৮টা ২০ মিনিটে রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালে মারা যান। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৬৯ বছর।

গত ৮ ডিসেম্বর ভারতের চেন্নাইয়ে নেওয়া হয় আবদুল কাদেরকে। পরে ১৫ ডিসেম্বর তার প্যানক্রিসের (অগ্ন্যাশয়) ক্যানসারে আক্রান্ত হওয়ার কথা জানা যায়।

দেশে ফেরার পর ২০ ডিসেম্বর সন্ধ্যায় রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালে ভর্তি করা হয় এ অভিনেতাকে। এরপর তার করোনা আক্রান্ত হওয়ার খবর পাওয়া যায়। শুক্রবার মধ্যরাতে তাকে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) নেওয়া হয়।

সেখানেই তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।
আবদুল কাদের কথাসাহিত্যিক হুমায়ূন আহমেদের লেখা ‘কোথাও কেউ নেই’ ধারাবাহিক নাটকে ‘বদি’ চরিত্রে অভিনয় করে তুমুল আলোচনায় আসেন।

এ ছাড়া জনপ্রিয় ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান ‘ইত্যাদি’র পরিচিত মুখ তিনি। হাস্যরসাত্মক চরিত্রে অভিনয়ের জন্য ছোট পর্দায় তিনি তুমুল জনপ্রিয়। নাটক, চলচ্চিত্রের পাশাপাশি বেশ কিছু বিজ্ঞাপনচিত্রেও দেখা গেছে তাকে। থিয়েটারেও সরব ছিলেন তিনি।

অভিনেতা আবদুল কাদের ১৯৫১ সালে মুন্সীগঞ্জের টঙ্গিবাড়ী উপজেলার সোনারং গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। তার বাবার নাম আবদুল জলিল আর মায়ের নাম আনোয়ারা খাতুন।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে অর্থনীতিতে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর করেন আব্দুল কাদের। কর্মজীবন শুরু হয় শিক্ষকতা দিয়ে। তিনি অর্থনীতিতে সিঙ্গাইর কলেজ ও লৌহজং কলেজে শিক্ষকতা করেছিলেন।

বিটপী বিজ্ঞাপনী সংস্থায় এক্সিকিউটিভ হিসেবে চাকরির পর ১৯৭৯ সাল থেকে আন্তর্জাতিক কোম্পানি ‘বাটা’তে চাকরি করেন। সেখানে ছিলেন ৩৫ বছর।

রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ‘ডাকঘর’ নাটকে অমল চরিত্রে অভিনয়ের মাধ্যমে আবদুল কাদেরের প্রথম নাটকে অভিনয়। ১৯৭২-৭৪, পরপর তিন বছর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় মহসিন হল ছাত্র সংসদের নাট্য সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেন তিনি।

ডেসিমি/ইই





© All rights reserved © 2018 dailysylhetmedia
পোর্টাল বাস্তবায়নে : বিডি আইটি ফ্যাক্টরী লিঃ