শনিবার, ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২১, ০৭:৩০ পূর্বাহ্ন

শীর্ষ সংবাদ : :
২৭ ফেব্রুয়ারি : আজকের দিনে বাংলাদেশ মাধ্যমিক বিদ্যালয় গ্রন্থাগার সমিতির আত্মপ্রকাশ ধর্মপাশায় হ্যান্ডটলির নিচে চাপা পড়ে শিশুর মৃত্যু নিসচা সিলেট মহানগর শাখার শোক প্রকাশ বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট গোলাপগঞ্জ পৌর শাখার কমিটি গঠন গাঁজা বেচে মাসে সোয়া ৪ কোটি টাকা আয়! সিলেট রশিদপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৮ সিলেট পূর্ব জেলা তালামীযের মতবিনিময় সম্পন্ন ২৬ ফেব্রুয়ারি : আজকের দিনে সারাদেশের ন্যায় সিলেটেও ক্যাম্পাস হোস্টেল খোলার দাবিতে বিক্ষোভ প্রেমের ফাঁদে ফেলে কলেজছাত্রীকে একাধিকবার ধর্ষণ ধর্মপাশায় দু’পক্ষের সংঘর্ষে নারীসহ আহত ১২, দোকানপাট ও বাড়িঘরে হামলা, ভাংচুর সিলেটে আসা প্রবাসীদের জন্য নতুন নির্দেশনা ১০ থেকে ১২ হাজার লোকবল রেলে নিয়োগ দেওয়া হবে: রেলমন্ত্রী টিকা নেওয়ার পর মনে করবেন না সব সমাধান হয়ে গেছে : প্রধানমন্ত্রী জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের সব পরীক্ষার নতুন সময়সূচি ঘোষণা যুক্তরাষ্ট্রে অনিবন্ধিত বাংলাদেশিদের বৈধ করার আহ্বান পররাষ্ট্রমন্ত্রীর এড. খসরু’র মৃত্যুতে সিলেট জেলা আইনজীবী সমিতির শোক প্রকাশ শাহবাগে বিক্ষোভ থেকে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ১০ শিক্ষার্থী আটক ২৫ ফেব্রুয়ারি : আজকের দিনে
ইজারাদার তানভীরের উপর সন্ত্রাসী হামলার প্রতিবাদে ধর্মপাশায় মানববন্ধন

ইজারাদার তানভীরের উপর সন্ত্রাসী হামলার প্রতিবাদে ধর্মপাশায় মানববন্ধন

ধর্মপাশা (সুনামগঞ্জ) প্রতিনিধি :: সুনামগঞ্জের ধর্মপাশা উপজেলার রাজাপুর গ্রামের বাসিন্দা ব্যবসায়ী তানভীর হাসানের উপর পরিকল্পিত সন্ত্রাসী হামলা ও অহত হওয়ার ঘটনায় সন্ত্রাসীদের গ্রেপ্তার ও বিচারের দাবিতে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করা হয়েছে।

সোমরার দুপুর ১২টার দিকে উপজেলার সুখাইড় রাজাপুর দক্ষিন ইউনিয়নের রাজাপুর বাজারে এলাকাবাসীর ব্যানারে এ মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করা হয়।
মানববন্ধনে এলাকার প্রায় সহস্রাধিক নারী – পুরুষ অংশ গ্রহণ করেন।

মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, উপজেলা আওয়ামীলীগের সদস্য মো. বুলবুল আহমেদ, ইউনিয়ন যুবলীগের সহ সভাপতি শাহাজুল ইসলাম, জুবায়ের আহমেদ, সাধারন সম্পাদক বখতিয়ার আহম্মেদ আহত তানভীরের মা আছিয়া বেগম, রাজাপুর বাজার কমিটির সাধারন সম্পাদক জিল্লুর রহমান টিটু, জেন্সি আক্তার, ব্যবসায়ী সাদ্দাম হোসেন প্রমুখ।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, তানভীর হাসান এলাকার একজন নিরীহ ব্যবসায়ী ও বিভিন্ন জলমহালের ইজারাদারই নন তিনি এলাকায় একজন সমাজ সেবেক হিসেবেও পরিচিত।
গত ১৩ ফেব্রুয়ারি রাত সাড়ে ৮ টার দিকে রাজাপুর দক্ষিণ হাটি গ্রামের এনামুল হক, ঈমামুল হক, মুখসেদুল ও জায়েদ নুরের নেতৃত্বে এলাকার ১২-১৪ জন চিহ্নিত সন্ত্রাসী পূর্ব পরিকল্পিত ভাবে ব্যবসায়ী তানভীরকে হত্যার উদ্দেশ্যে তাকে একা পেয়ে অর্তকিত হামলা চালায়।

আশংকাজনক অবস্থায় গত নয় দিন ধরে তিনি ঢাকার শ্যামলী এলাকার টমা নামক একটি প্রাইভেট হাসপাতালে চিকৎসাধিন অবস্থায় মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছেন।

এ সময় সন্ত্রাসীরা ধারালো অস্ত্র দিয়ে তানভীরের পা থেকে মাথা পর্যন্ত এলোপাথাড়ি কুপিয়ে গুরুতর আহত করে। এ ব্যাপারে ধর্মপাশা থানায় একটি মালালা হওয়ার পর পুলিশ জিটু মিয়া ও আসন মিয়াকে গ্রেপ্তার করলেও মামলার বাকি ১০ জন আসামী এখনো এলাকার প্রকাশে ঘুরাঘুরি করছে। এমন কি তারা এখনো প্রত্যন্ত হাওরাঞ্চলে চুরি, ছিনতাইসহ বিভিন্ন অপরাধ করে রেড়াচ্ছে। কিন্তু পুলিশ তাদেরকে গ্রেপ্তার করছে না।
তাই এ ঘটনায় জড়িত আসামীদেরকে দ্রুত গ্রেপ্তার করে তাদের দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তির দাবী জানান তারা।
ধর্মপাশা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ দেলোয়ার হোসেন বলেন, তানভীরের উপর সন্ত্রাসী হামলা ও আহত করার ঘটনায় থানায় দায়েরকৃত মামলার পর পরই দুইজন আসামীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এবং বাকি আসামীদেরকেও গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে। তবে আসামীরা এলাকা ছেড়ে গা ঢাকা দেওয়ায় তাদেরকে গ্রেপ্তার করতে বিলম্ব হচ্ছে।

উল্লেখ্য উপজেলার রাজাপুর দক্ষিণ হাটি গ্রামের আবুল বাশারের ছেলে ইজারাদার তানভীর হাসানদের সাথে একই গ্রামের আয়াত নূরের ছেলে এনামূল হকদের দীর্ঘদিন ধরে জমিজমাসহ বিভিন্ন বিষয়াদি নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল। পূর্ব বিরোধের জের ধরে শনিবার রাত সাড়ে আটটার দিকে ইজারাদার তানভীর হাসান তার মোটরসাইকেল যোগে রাজাপুর বাজার থেকে বাড়ি যাওয়ার উদ্দেশ্যে রওনা দেন। তার মোটরসাইকেলটি রাজাপুর হোসাইনিয়া মাদ্রাসা সংলগ্ন রাস্তায় যাওয়া মাত্রই প্রতিপক্ষের এনামূল হক, ঈমামূল হক ও মুখসেদুল হকের নেতৃত্বে ১২-১৪ জন সন্ত্রাসী ধারালো অস্ত্র-শস্ত্রে সজ্জিত হয়ে ওই রাস্তার দুই পাশে আগে থেকেই ওঁত পেতে থাকা সন্ত্রাসীরা তাকে পথরোধ করে তাকে মাটিতে ফেলে তার পা থেকে মাথা পর্যন্ত এলোপাথাড়ি কুপিয়ে গুরুতর আহত করে।

এসময় তার ডাক-চিৎকার শুনে আশপাশের লোকজন টর্চ লাইট জ্বালিয়ে ঘটনাস্থলের দিকে এগিয়ে যেতে দেখে সন্ত্রাসীরা তাকে ফেলে দৌড়ে পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয়রা তাকে ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার করে দ্রুত পাশের মোহনগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে ভর্তী করেন। সেখানে তার অবস্থার অবনতি দেখে কর্তব্যরত চিকিৎসক সঙ্গে-সঙ্গে তানভীরকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন। পরে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করার পর তার অবস্থা আশংকাজনক দেখে সেখানকার কর্তব্যরত চিকিৎসক ওই রাতেই আরো উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তরিত করেন।

বর্তমানে তিনি ঢাকার শ্যামলী এলাকার টমা নামক একটি প্রাইভেট হাসপাতালে চিকৎসাধিন অবস্থায় মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছেন।

ডেসিমি/ইই





© All rights reserved © 2018 dailysylhetmedia
পোর্টাল বাস্তবায়নে : বিডি আইটি ফ্যাক্টরী লিঃ