শুক্রবার, ২৩ এপ্রিল ২০২১, ১২:০৩ পূর্বাহ্ন

শীর্ষ সংবাদ : :
ছাত্রদল নেতা মাসরুর রাসেলের পিতৃবিয়োগে খন্দকার মুক্তাদিরের শোক গোলাপগঞ্জে জাতীয় পুষ্টি সপ্তাহ উপলক্ষে প্রস্তুতি সভা লকডাউন তুলে নিলে জেলে চলে যাবো : বাবুনগরী শাবির ল্যাবে নমুনা পরীক্ষায় মঙ্গলবার ৭৩জনের করোনা পজিটিভ শাল্লায় বিএনপি নেতা নোমান গ্রেফতার শাল্লায় অফিস থেকে মহিলা শ্রমিককে ধাক্কা মেরে বের করে দেন উপ-সহকারি প্রকৌশলী লকডাউন ভেঙ্গে সিলেটে পরিবহন শ্রমিকদের বিক্ষোভ ভারতে করোনার ‘ট্রিপল মিউট্যান্টের’ হানা এমপি মানিকের সাথে নব গঠিত দোয়ারাবাজার সমিতির সাক্ষাৎ লকডাউনে ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য সাড়ে ১০ কোটি টাকা বরাদ্দ প্রধানমন্ত্রীর মহিলা দল নেত্রী আফরোজা শোভা বহিষ্কার কওমি মাদরাসার কর্তৃত্ব হারাচ্ছে হেফাজত : ভেঙে দেওয়া হতে পারে বর্তমান কমিটি স্বাস্থ্যবিধি মেনে খুলছে দোকানপাট! সিলেটে ট্রাভেলস ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে ৭ লাখ টাকার চেক ডিজঅনার মামলা সুবিধাবঞ্চিত মানুষের পাশে দ্য হেল্পিং উইং শাল্লার ঘুঙ্গিয়ারগাঁও বাজারে অগ্নিকান্ড ৫লক্ষাধিক টাকার ক্ষতি জৈন্তাপুরে মোবাইল কোর্টে ৬ ব্যক্তিকে জরিমানা নবীগঞ্জে এতিম শিক্ষার্থীদের মাঝে পুলিশ সুপারের ইফতার সামগ্রী বিতরণ শাবির ল্যাবে নমুনা পরীক্ষায় ৭৭জনের করোনা পজিটিভ সিলেটে নুরের বিরুদ্ধে ছাত্রলীগ নেতার মামলা
ধর্মপাশায় গৃহবধূ গণধর্ষণের শিকার হওয়ার ৫ দিন পর থানায় মামলা

ধর্মপাশায় গৃহবধূ গণধর্ষণের শিকার হওয়ার ৫ দিন পর থানায় মামলা

ধর্মপাশা (সুনামগঞ্জ) প্রতিনিধি : সুনামগঞ্জের ধর্মপাশা উপজেলার মধ্যনগরে রিনা বেগম (৪২) নামে এক গৃহবধূ ধর্ষণের শিকার হওয়ার পাঁচদিন পর থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত সাড়ে ১২ টার দিকে ভিকটিম নিজে বাদি হয়ে উপজেলার বংশিকুন্ডা দক্ষিন ইউনিয়নের ডুলপুষি সরকারারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারি শিকক্ষ রতন চন্দ্র সরকারসহ পাঁচ জনকে আসামি করে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মধ্যনগর থানায় এ মামলাটি দায়ের করেন।

মামলার অন্যান্য আসামিরা হলেন, একই ইউনিয়নের নিশ্চিন্তপুর গ্রামের আব্দুল খালেকের ছেলে আজাদ মিয়া (৪৮),দদ পাশের রংচাতি গ্রামের আব্দুল হকের ছেলে আর্শাদ মিয়া (৩৫), বংশিকুন্ডা গ্রামের সায়েব আলীর ছেলে ইউনুস মিয়া (৩৫) ও একেই গ্রামের লালু মিয়ার ছেলে রফিকুল ইসলাম( ৩৫)।
২৮ মার্চ রাত ৮ টার দিকে উপজেলার বংশিকুন্ডা দক্ষিণ ইউনিয়নের দক্ষিণউড়া গ্রামের নৃপেন্দ্র চন্দ্র বিশ্বাসের বাড়ির সামনের পুকুর পাড়ে থাকা একটি চাপড়া ঘরে ওই গৃহবধূকে জোরপৃর্বক এ গণ ধর্ষণের ঘটনাটি ঘটায়।

গণ ধর্ষণের শিকার গৃহবধূ রিনা বেগম ওই ইউনিয়নের বুড়িপত্তন গ্রামের দিনমজুর আতাবুল মিয়ার স্রী।

এদিকে, বিষয়টি গোপন রেখে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আজিম মাহমুদসহ এলাকার প্রভাবশালী একটি মহল মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে এ ঘটনাটি ধামাচাপা দেওয়ার চেষ্টা করেন। পরে খবর পেয়ে ঘটনার ৫ দিন পর পুলিশ বৃহস্পতিবার রাতে ঘটনাস্থল থেকে ভিকটিমকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে এবং ওই রাতেই ভিকটিম নিজে বাদি হয়ে এ মামলাটি দায়ের করেন। পাশাপাশি গতকাল শুক্রবার দুপুরে ডাক্তারি পরিক্ষার জন্য পুলিশ ভিকটিমকে সুনামগঞ্জ আধুনিক সদর হাসপাতালে পাঠিয়েছে।

মামলার বিবরণে জানা গেছে, উপজেলার বুড়িপত্তন গ্রামের দিনমজুর আতাবুল মিয়ার স্রী গৃহবধূ রিনা বেগম ২৮ মার্চ সন্ধায় তার অন্তঃসত্তা অসুস্থ পুত্রবধূর জন্য পাশের বাট্রা গ্রামের দ্বিনবন্ধু নামে এক কবিরাজের কাছ থেকে একটি তাবিজ আনতে যান।

পরে সেখান থেকে ওই দিন রাত ৮ টার দিকে তিনি তাবিজ নিয়ে নিজ বাড়ি আসার পথে দক্ষিন উড়া গ্রামের নৃপেন্দ্র চন্দ্র বিশ্বাসের বাড়ির সামনের পুকুর পাড়ে আসা মাত্রই সেখানে থাকা একটি চাপরাঘরে বসে শিক্ষক রতন চন্দ্র সরকারসহ ৫জন মাদক সেবন করছিল। এ সময় তারা ওই গৃহবধূকে একা দেখতে পেয়ে তাকে ডেকে ওই চাপড়াঘরে নিয়ে আসে।

পরে তারা সেখানে ওই গৃহবধূকে জোরপৃর্বক পালাক্রমে ধর্ষণ করে। পরে ধর্ষিতা ওই গৃহবধূ সেখান থেকে গিয়ে বিষয়টি তার স্বামীসহ স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ও গণ্যমান্য ব্যক্তিদেরকে জানান।
এ দিকে মামলার প্রধান আসামি নিশ্চিন্তপুর গ্রামের মৃত হর কুমার সরকারের ছেলে ও ডুলপুষি সরকারি প্রথমিক বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক রতন চন্দ্র সরকারের কাছ থেকে মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আজিম মাহমুদসসহ এলাকার প্রভাবশালী একটি মহল এ ঘটনাটি ধামাচাপা দেওয়ার চেষ্টা করেন বলেও এলাকায় অভিযোগ উঠে।

মামলার প্রধান আসামি শিক্ষক রতন চন্দ্র সরকারের ব্যবহৃত ০১৭৫৬৫২৩১২১ মোবাইল নম্বরে একাধিকবার কল করা হলেও তার মোবাইলটি বন্ধ থাকায় তার সঙ্গে কথা বলা সম্ভব হয়নি।
এ ব্যাপারে উপজেলার বংশিকুন্ডা দক্ষিণ ইউপি চেয়ারম্যান আজিম মাহমুদ তার বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, আমার কাছে গত দুইদিন আগে ওই ভিকটিম অভিযোগ নিয়ে আসলে আমি তাকে থানায় গিয়ে আইনি ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য পরামর্শ দিয়ে বিদায় করি।

মধ্যনগর থানার অফিসার ইনচার্জ নির্মল চন্দ্র দেব এ ব্যাপারে থানায় মামলা হওয়ার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত সাড়ে ১২টায় শিক্ষক রতন চন্দ্র সরকারসহ পাঁচ জনকে আসামি করে ভিকটিম নিজে বাদি হয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। পাশাপাশি শুক্রবার দুপুর আড়াইটার দিকে ভিকটিমকে ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য সুনামগঞ্জ আধুনিক সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে এবং আসামিদেরকেও গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

ডেসিমি/ইই





© All rights reserved © 2018 dailysylhetmedia
পোর্টাল বাস্তবায়নে : বিডি আইটি ফ্যাক্টরী লিঃ